চকরিয়া পৌর এলাকায় প্রতিবেশীর নির্যাতন ও মারধরের শিকার অসহায় পরিবার

received_2418126718479635

এম আর এমরান, পেকুয়া,কক্সবাজার।

কক্সবাজারের চকরিয়ার ০৮ নং ওয়ার্ডের চেয়ারম্যান পাড়ায় অসৎ প্রতিবেশী দ্বারা প্রতিনিয়ত নির্যাতনের শিকার হচ্ছে একটি অসহায় পরিবার। প্রতিবেশী মোঃ নাসির উদ্দিন (৫৭) পিতাঃ মৃত আব্দুল করিম।নাসির উদ্দিনের স্ত্রী, ছেলে সোহাগ (২১) সৌরভ (১৮) বাবু (১৩) সহ তার ভাড়া করা বকাটে দিয়ে প্রায় সময় কারণে অকারণে নির্যাতন করে আসছে একই এলাকার এনামুল হক পিতাঃ মৃত গোলাম রহমান (প্রকাশ কালু সওদাগর) ও তার পরিবারের উপর। নির্যাতনের শিকার হওয়া এনামুল বলেন, প্রতিবেশী নাসির উদ্দিন দীর্ঘদিন ধরে আমি এবং আমার পরিবারের উপর নির্যাতন, অত্যাচার করে আসছিল। ছোট বেলায় আমার মা বাবা হারানোয় আমি অসহায় হয়ে পড়ি।আমার পাশে দাড়ানোর মতো কেউ নেই।সেই সুযোগ কাজে লাগিয়ে নাসির উদ্দিন ও তার ছেলেরা মিলে শত বছর ধরে বসবাসরত আমার পৈত্রিক ভিটা থেকে আমাকে তাড়িয়ে ভিটাটি দখল নিতে মরিয়া হয়ে ওঠেছে।বর্তমানে করোনা পরিস্তিতির সুযোগকে কাজে লাগিয়ে গত কয়েকদিন ধরে দখল চেষ্টার মাত্রা বাড়িয়ে আমি এবং আমার পরিবারকে নির্যাতন চালিয়ে আসছে। ০৮ ওয়ার্ডের কাউন্সিলর জনাব মুজিবুর রহমানকেও বেশ কয়েকবার নির্যাতনের বিষয়টি অবগত করা হয়েছে। তিনি করোনা পরিস্তিতি শান্ত হলে বিষয়টি দেখবেন বলে আশ্বাস দেওয়ার পরও কোন ভাবেই দমিয়ে রাখা যাচ্ছে না নাসির উদ্দিনকে। গত ২২ জুন নাসির উদ্দিন ও তার লোকজন আমার আগের ঘেরাবেড়া ভেঙ্গে দিয়ে আমার ভিটা দখল করতে আসলে আমি বাঁধা দিতে গেলে তারা আমাকে এবং আমার পরিবার,ছোট ছোট ছেলেদের মারধর করে। আমাদের আর্তনাদের আওয়াজে প্রতিবেশীরা ছুটে আসলে পরে দেখে নেওয়ার হুমকি দিয়ে পালিয়ে যায়। তার হুমকিতে আতংকিত হয়ে আমি থানায় অভিযোগ করলে ২৪ জুন চকরিয়া থানার ওসি সাহেব বেশ কয়েকবার পুলিশ পাঠিয়ে নাসির উদ্দিনকে আর কোন ধরনের হামলা না করার নির্দেশ দেওয়া দেন। কিন্তু তবুও তার অত্যাচার থামছে না। গতকাল ১৮ জুলাই নাসির উদ্দিন ও তার ছেলে মেয়ে এসে আবার আমার পরিবারের উপর হামলা চালায় এবং আমার স্ত্রী ইয়াসমিন আক্তার (২৭) কে প্রচুর মারধর করে। মারধরের সময় আরেক প্রতিবেশী মঈন উদ্দিনের স্ত্রী মরিয়ম আক্তার (২৮) বাঁধা দিতে আসলে তাকেও মারধর করে নাসির বাহিনী। মারধরে আহত হওয়া প্রতিবেশী মরিয়ম আক্তার জানায়,
আমার কোন দোষ নেই,বিনা দোষে ওরা আমাকে মেরেছে। প্রতিবেশী নাসির ও তার ছেলেরা প্রায় সময় এনামুল হকের পরিবারকে নির্যাতন করত। গতকালও এনামুল হকের স্ত্রী ইয়াছমিনকে মারতে দেখে আমি তাদের ঝগড়া না করতে বারণ করি,তাই ক্ষিপ্ত হয়ে নাসির ও তার ছেলেরা আমাকেও মারধর করে। আমি হামলাকারীদের দৃষ্টান্ত মুলক বিচার চাই।

বিভাগের সংবাদ।

নিউজ ডেস্ক, চকরিয়া২৪।