চবি শিক্ষার্থীর ওপর হামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন ‘বনেররাজা’ আওয়ামী লীগের নেতাকে গ্রেপ্তারের দাবি

FB_IMG_1596434186427

এস এম হানিফ:

কক্সবাজারের পেকুয়া উপজেলার বারবাকিয়া ইউনিয়নের পাহাড়িয়াখালী এলাকার বাসিন্দা ও চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ইইই (ইলেকট্রিক্যাল অ্যাণ্ড ইলেকট্রনিক্স ইঞ্জিনিয়ারিং) বিভাগের শিক্ষার্থী আনছার উদ্দিনের ওপর হামলার প্রতিবাদে ও হামলাকারী বনেররাজা জাহাঙ্গীরসহ সকল সন্ত্রাসীদের গ্রেপ্তারের দাবিতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। রোববার বিকেল সাড়ে তিনটা থেকে সাড়ে চারটা পর্যন্ত বারবাকিয়া বাজারে এই মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

মানববন্ধনে বারবাকিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় এলামনাই এসোসিয়েশন, ধনিয়াকাটার আলোর অভিযাত্রী, পাহাড়িয়াখালী কেন্দ্রীয় পাঠাগার, ওমরগনি এম.ই.এস বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ ছাত্রলীগ, চট্টগ্রামের পেকুয়া উপজেলা ছাত্র যুব কল্যাণ পরিষদ, পাহাড়িয়াখালী ছাত্র কল্যাণ পরিষদ, বারবাকিয়া আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয় প্রাক্তন ছাত্র পরিষদ, শিলখালী উচ্চ বিদ্যালয় প্রাক্তন ছাত্র-ছাত্রী পরিষদসহ স্থানীয় বিভিন্ন সামাজিক সংগঠন অংশ নেয়।

মানববন্ধনে বক্তব্য দেন চট্টগ্রাম সিটি কলেজের সহকারী অধ্যাপক আজম মোহাম্মদ আনোয়ার সাদাত, চিকিৎসক জাকের হোসেন, চট্টগ্রাম মহসিন কলেজের প্রভাষক নজরুল ইসলাম, চিব্বাড়ি আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক কামাল হোছাইন, কৃষি ব্যাংকের কর্মকর্তা গোলাম নবী, কক্সবাজার সিটি কলেজের সহকারী অধ্যাপক সাজ্জাদুল ইসলাম, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের চকরিয়া-পেকুয়া ছাত্র ফোরামের সভাপতি আবু হাসনাত তানভীর, চট্টগ্রামের পেকুয়া উপজেলা ছাত্র যুব কল্যাণ পরিষদের সাধারণ সম্পাদক সাদ্দাম হোসেন, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র মোস্তফা মানিক, পাহাড়িয়াখালী ছাত্র কল্যাণ পরিষদের পক্ষে এইচ এম জিহাদ, এলাকাবাসীর পক্ষে মাস্টার জাহেদ, শিলখালী উচ্চ বিদ্যালয় এলামনাই এসোসিয়েশনের পক্ষে মো. ফারুক ও পরিবারের পক্ষে আনছার উদ্দিনের বড় ভাই গিয়াস উদ্দিন।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, বারবাকিয়া ২ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি ও বনেররাজা জাহাঙ্গীর আলমের নেতৃত্বে ১০-১২ জন সন্ত্রাসী প্রকাশ্যে চবি’র মেধাবী শিক্ষার্থী আনছার উদ্দিনের ওপর বর্বর হামলা করেছে। আনছার চট্টগ্রামের একটি হাসপাতালে এখন মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছে। হামলার ঘটনায় বনেররাজা জাহাঙ্গীরের বিরুদ্ধে মামলা হলেও পুলিশ এখন পর্যন্ত তাকে গ্রেপ্তার করেনি। অথচ জাহাঙ্গীর বারবাকিয়া বাজার এলাকায় এক আওয়ামী লীগের নেতার (জাহাঙ্গীরের আশ্রয় ও প্রশ্রয়দাতা) বাড়িতে অবস্থান করছে। মানববন্ধনে অংশ নেওয়া কেউ কেউ জাহাঙ্গীরের আশ্রয় ও প্রশ্রয়দাতা ওই আওয়ামীলীগের নেতার বিরুদ্ধেও আইনগত ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি জানিয়েছেন।

বক্তারা বলেন, বারবাকিয়ার পাহাড়ে দখল-বেদখল, খুন-ধর্ষণ, ডাকাতি-সবকিছুই চলে বনেররাজা জাহাঙ্গীরের নেতৃত্বে। কিছু কিছু ঘটনায় তাঁর বিরুদ্ধে মামলা হলেও পুলিশ তাকে ধরে না। চবি’র শিক্ষার্থী আনছার উদ্দিন ও বনেররাজা জাহাঙ্গীর একই ওয়ার্ডের বাসিন্দা। একজনের জমি দখলের প্রতিবাদ করায় জাহাঙ্গীরের নেতৃত্বে প্রকাশ্যে বারবাকিয়া বাজারে আনছারকে হত্যার চেষ্টা করা হয়। আমরা দ্রুততম সময়ের মধ্যে তাকে গ্রেপ্তারের দাবি করছি।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, বনেররাজা জাহাঙ্গীরের বিরুদ্ধে ডাকাতি, বন, হত্যা চেষ্টাসহ অন্তত ১০টি মামলা রয়েছে। এসব মামলা মাথায় নিয়ে প্রকাশ্যে ঘুরছেন তিনি।

এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে পেকুয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কামরুল আজম বলেন, জাহাঙ্গীরকে ধরার চেষ্টা করছে পুলিশ। ইতোমধ্যে তাকে ধরতে কয়েকবার অভিযানও চালানো হয়ে হয়েছে। বনেররাজা বা আওয়ামী লীগের নেতা, সে যেই হোক পার পাবে না।

বিভাগের সংবাদ।

নিউজ ডেস্ক, চকরিয়া২৪।