চকরিয়ার কোনাখালীতে জমি দখলে আপন সহোদরদের নেতৃত্বে ভাড়াটিয়া সশস্ত্র সন্ত্রাসী বাহিনী নিয়ে হামলা

IMG_20200805_011741

চকরিয়া প্রতিনিধি

চকরিয়া উপজেলার কোনাখালী ইউনিয়নের ৫নং ওয়ার্ডের পূর্বকোনাখালী সিকদারপাড়া গ্রামে এক অসহায় পরিবারের চাষাবাদী ও বসতভীটার জমি জবর দখলে নিতে আপন সহোদরদের নেতৃত্বে ভাড়াটিয়া সশস্ত্র সন্ত্রাসী বাহিনী নিয়ে ৪আগষ্ট বিকেলে হামলা ঘটনা ঘটেছে। এনিয়ে ভূক্তভোগি পরিবারের মরহুম আবুল হোসেন সওদাগরের পুত্র মোঃ জাহেদ উদ্দিন চৌধুরী বাদী হয়ে এদিন (৪আগষ্ট) সন্ধ্যায় থানায় লিখিত অভিযোগ দেন। এতে অভিযুক্ত করা হয়েছে; একই এলাকার মৃত সাইফুল আলমের পুত্র আরাফাতুল করিম এবং বাদীর তিনজন আপন সহোদর মঈন উদ্দিন, কফিল উদ্দিন ও কাজিম উদ্দিন টিটুসহ অজ্ঞাত কয়েকজনকে।

বাদী অভিযোগে জানান, অভিযুক্তরা পরস্পর যোগগসাজসে তার (বাদীর) ভোগ দখলীয় চাষাবাদী ও বসতভীটার জমি জবর দখলের চেষ্টা চালিয়ে আসছে। এনিয়ে তিনি বাদী হয়ে ইতিপূর্বে বিগত ২০জানুয়ারী’২০ইং থানায় একটি লিখিত অভিযোগ (নং এসডিআর ১৫১/২০) দায়ের করেন। তার পক্ষে তার সেজ ভাই জয়নাল আবদীন ও ৪নং ভাই কুতুব উদ্দিন স্বাক্ষীসহ যথেষ্ট সহযোগিতাও করেন। যার কারণে প্রশাসনিক ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধির সহযোগিতায় শান্তিপূর্ণ ভোগ দখলসহ বসবাসও করছেন। কিন্তু ব্যক্তিগত ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীক কাজের সুবাদে ঢাকা-চট্টগ্রামে অবস্থান করার সুযোগে ৪আগষ্ট দুপুরে উল্লেখিত অভিযুক্তরা পূণরায় জমি জবর দখলে মেতে উঠে এবং অস্ত্র শস্ত্র নিয়ে প্রকাশ্যে জমির কাটা তারের বেড়াসহ ঘেরা বেড়া ভাংচুর চালায়। এক পর্যায়ে জমি মালিকসহ সহযোগিতাকারী সহোদরদের প্রাণনাশের হুমকি দেন। যা মোবাইলে ভিডিওসহ ছবি ধারণ করেন। ঘটনার সময় পুলিশের ৯৯৯ নাম্বারে কল করলে পুলিশ তাৎক্ষনাৎ স্থানীয় ইউপি সদস্য আবুল কালামকে নিয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।
চকরিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃ হাবিবুর রহমান জানিয়েছেন, লিখিত অভিযোগটি পাওয়ার পর প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা নিতে মাতামুহুরী পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রকে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

বিভাগের সংবাদ।

নিউজ ডেস্ক, চকরিয়া২৪।