সর্বশেষ শিরোনাম
চকরিয়ায় ৯৯টি কেন্দ্রের মধ্যে ৪০ প্রিজইডিং অফিসারকে ম্যানেজের অভিযোগ আ.লীগের বিদ্রোহী প্রার্থীরচকরিয়ায় আজ ভোট উৎসব অনিয়মে জড়ালে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাকে গ্রেফতার ব্যালটে হাত দিলে প্রয়োজনে গুলি-পুলিশ সুপারচকরিয়া উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে মাঠে আছেন ১২ প্রার্থী: ভোট দেবেন ২ লাখ ৮৪ হাজার ৫৫৫ জন ভোটারচকরিয়ায় এমপি জাফর আলমকে এলাকা ছাড়ার লিখিত নির্দেশ নির্বাচন কমিশনেরগোপন ব্যালট ছাপিয়ে চকরিয়ায় আনারস মার্কার ফলাফল পাল্টাতে প্রস্তুতি নিয়েছে জনবিচ্ছিন্ন চক্র-সাঈদীচকরিয়ায় অকালে ঝড়ে গেলো নৌকার মিছিলে দূর্ঘটনায় আহত ছাত্রলীগ নেতা ছোটনচকরিয়ায় দোয়াত কলম প্রতীকে চেয়ারম্যান প্রার্থী জহিরের নির্বাচনী শোডাউনে গণজোয়ারচকরিয়া কোরক বিদ্যাপীঠের সপ্তাহব্যাপি বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা শুরুচকরিয়ায় রেললাইন নির্মাণ কাজের সামগ্রী চুরিসোমবার চকরিয়াতে ভোট গ্রহনের সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন

প্রশাসনের কাছে আকুল আবেদন চকরিয়ায় একটি অবাধ সুষ্ঠ ও নিরপেক্ষ নির্বাচন উপহার দিন-সাঈদী

[post-views]

Chakaria Picture 15-03-2019,

চিরিঙ্গা কাকারা বদরখালীতে ১২টি পথসভায় চেয়ারম্যান প্রার্থী ফজলুল করিম সাঈদী

চকরিয়া অফিস:
চকরিয়া উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে জনগনের মনোনীত নাগরিক কমিটির চেয়ারম্যান প্রার্থী ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি তারুণ্যের অহংকার আলহাজ ফজলুল করিম সাঈদী গতকাল শুক্রবার (১৫ মার্চ) তাঁর নির্বাচনী প্রতীক আনারস মার্কার সমর্থনে চকরিয়া পৌরসভা ও উপজেলার চিরিঙ্গা, কাকারা ও বদরখালী ইউনিয়নে অন্তত ১২টি পথসভায় বক্তব্য দিয়েছেন। প্রতিটি পথসভায় হাজার হাজার জনতার ঢল নামে জনপ্রিয় চেয়ারম্যান প্রার্থী ফজলুল করিম সাঈদীকে একনজর দেখার জন্য। পথসভা পরবর্তী এসব ইউনিয়নের বিভিন্ন এলাকায় ব্যাপক গনসংযোগ করেছেন তিনি। গতকাল তিনি গনসংযোগের শুরুতে চকরিয়া উপজেলার চিরিঙ্গা ইউনিয়নে পৌঁছে জনগনের সঙ্গে কুশল বিনিময় করে আনারস মার্কার সমর্থনে ভোট প্রার্থনা করেন। এরপর তিনি ইউনিয়নের মাছঘাট স্টেশনে উপস্থিত জনগনের উদ্দেশ্যে পথসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন। ওইসময় চিরিঙ্গা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ জসীম উদ্দিন, সমাজ সেবক ও শিল্পপতি জামাল হোছাইন চৌধুরী ও প্রবীণ আওয়ামীলীগ নেতা নুরুল আলম সহ আওয়ামীলীগ ও সহযোগি সংগঠনের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন। দুপুরে তিনি মালুমঘাটস্থ ডুমখালী জামে মসজিদে জুমার নামাজ আদায় করেন। পরে মসজিদে সমবেত ধর্মপ্রাণ মুসল্লী ও এলাকাবাসির সঙ্গে মতবিনিময় করেন। পরে তিনি স্থানীয় জনগনের সঙ্গে কুশল বিনিময় করেন। এরপর তিনি মালুমঘাটস্থ চাবাগান এলাকার খ্রীষ্টান পল্লীতে ব্যাপক গনসংযোগ করেন। খ্রীষ্টান সম্প্রদায়ের শীর্ষ নেতৃবৃন্দের সঙ্গে মতবিনিময়ও করেন। বিকালে তিনি চকরিয়া উপজেলার কাকারা ইউনিয়নে আনারস মার্কার সমর্থনে অন্তত ৬টি পথসভায় বক্তব্য দেন। বিকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত তিনি কাকারা ইউনিয়নের শাহওমরাবাদ, দরগা রাস্তার মাথা, ইউনিয়ন পরিষদ স্টেশন ও মাঝেরফাড়ি স্টেশনে এসব পথসভায় বক্তব্য শেষে রাতে উপজেলার উপকুলীয় ইউনিয়ন বদরখালীতে আনারস মার্কার সমর্থনেস্বরণকালের বিশাল জনসমুদ্রে প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন।
তফসিল ঘোষনার পর থেকে চকরিয়া উপজেলার ১৮টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভার এলাকার শহর থেকে গ্রামের দলমত নির্বিশেষে সর্বস্তরের উত্তাল জনতার কাছে জনপ্রিয়তার শীর্ষে এগিয়ে আছেন জনগনের মনোনীত নাগরিক কমিটির চেয়ারম্যান প্রার্থী ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি ক্রীড়া সংগঠক শ্রমিকনেতা আলহাজ ফজলুল করিম সাঈদী। শান্তিপ্রিয় চকরিয়াবাসি এবারের নির্বাচনে সর্বশ্রেণীর মানুষের আপনজন হিসেবে চেয়ারম্যান প্রার্থী ফজলুল করিম সাঈদীকে গ্রহন করেছেন। ইতোমধ্যে চকরিয়া উপজেলার সর্বস্তরের জনসাধারণ কলাগাছের সমর্থনে তাকে ভালোবাসার সেই প্রতিদান তাকে দিয়েছেন। জনগনের ভালোবাসা, দোয়া নিয়ে বর্তমানে প্রতিদিন নির্বাচনী গনসংযোগ চালিয়ে যাচ্ছেন তিনি। নির্বাচনী প্রচারনাকালে সাঈদী উপজেলার প্রতিটি জনপদে যেখানে যাচ্ছেন সেখানে জনগনের ব্যাপক উপস্থিতিতে ঘটছে।
পথসভায় চেয়ারম্যান প্রার্থী ফজলুল করিম সাঈদী চকরিয়া উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের দায়িত্বপ্রাপ্ত কক্সবাজার জেলা প্রশাসনের কাছে আকুল আবেদন জানিয়ে বলেন, চকরিয়া উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের সুষ্ঠ পরিবেশ বিঘœ সৃষ্টি করতে আচরণবিধি লঙ্ঘনের মাধ্যমে বিশেষ প্রার্থীর পক্ষে এলাকায় জনপ্রতিনিধিদের নানা ধরণের প্রভাব বিস্তার করে চলছে।
এসব প্রভাব বিস্তারের ঘটনা নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘনের যতেষ্ট উদাহারণ। বিষয়ের আলোকে নির্বাচন কমিশনে অভিযোগও দেয়া হয়েছে। কিন্তু অদৃশ্য কারণে আচরণবিধি লঙ্ঘনের ঘটনা এখনো চকরিয়ায় বিদ্যমান রয়েছে। তাই প্রশাসনের কাছে আমার আকুল আবেদন, আপনারা নিরপেক্ষভাবে একটি সুষ্ঠ ও শান্তিপুর্ণ নির্বাচন উপহার দিন, চকরিয়াবাসিকে আগামী ১৮ মার্চ প্রতিটি ভোট কেন্দ্রে উপস্থিত হয়ে আনারস মার্কায় ভোট দেয়ার জন্য সুযোগ দিন। আপনারা জেলা প্রশাসনের সর্বোচ্চ অভিভাবক ও ন্যায় বিচারক। আল্লাহ পাক ন্যায় বিচারকদের অবশ্যই মর্যাদা দেবেন। আশাকরি আল্লাহ পাকের নির্দেশনার আলোকে আপনারা ন্যায় বিচারকের ভুমিকা পালন করবেন। আপনাদের কঠোর নজরদারিতে আগেররাতে ভোট ডাকাতির পরিকল্পনা ভন্ডুল হবে। একটি শান্তিপুর্ণ নির্বাচনের মাধ্যমে চকরিয়া উপজেলার আপামর জনগন আনারস মার্কায় ভোট দেয়ার সুযোগ পাবে।
পথসভায় চেয়ারম্যান প্রার্থী ফজলুল করিম সাঈদী জনগনের উদ্দেশ্যে বলেন, আমি সংগ্রামী চকরিয়াবাসি আপনাদের ভালোবাসা, সমর্থন ও দোয়া নিয়ে জনগনের কল্যানে কাজ করতে ও দুষ্টের দমন করতে চেয়ারম্যান পদে প্রার্থী হয়েছি। আমার ব্যক্তিগত কোন চাওয়া পাওয়া নেই। নির্বাচনে অংশনেয়ার আগে দলের জেলা ও চকরিয়া উপজেলার সিনিয়র নেতা এবং তৃনমুলের সকলস্তরের নেতাকর্মীদের অনুপ্রেরণা পেয়েছি। আওয়ামীলীগের সর্বস্তরের নেতাকর্মীরা আমাকে সাহস দিচ্ছেন। প্রিয় চকরিয়াবাসি এবং আওয়ামীলীগের সকলস্তরের নেতাকর্মীর প্রতি অনুরোধ জানাবো আপনারা আমার উপর আস্থা রাখুন, আনারস মার্কাকে বিজয়ী করুন। আমার নেতাকর্মী, সমর্থকদের ভয়ভীতি দেখানো পরিহার করুন, একটি সুন্দর নির্বাচন উপহার দিতে সবাই সহযোগিতা করুন।
তিনি বলেন, চকরিয়া উপজেলা পরিষদের নির্বাচনের মাঠে আমার প্রতি আপনাদের দোয়া ও ভালবাসা এবং সমর্থন-সহযোগিতা দেখে প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থী ও তাঁর অনুসারীরা জনবিচ্ছিন্ন চক্র পাগল হয়ে গেছে। তাঁরা ভোটের মাধ্যমে বিজয় দেখছেনা। সেখানে জনগনের ভোট ডাকাতির জন্য পরিকল্পনা নিচ্ছে। আনারস মার্কার ভোট ছিনতাই করতে তাঁরা প্রিসাইডিং কর্মকর্তাদের ঢেকে নিয়ে
গোপন বৈঠক করছেন, টাকা বিলি করছেন। মনে রাখবেন, এসব অপর্কম করে আমাকে পরাজিত করতে পারবেনা। ১৮ মার্চ ভোটকেন্দ্রে জনগনের ব্যালট ছিনতাইয়ের সাহস দেখাবেন না, যদি করতে চান, সেইদিন সংগ্রামী চকরিয়াবাসি তা দেখে দেখে আঙ্গুল ছুষবেনা। সবাইকে বলবো, এই ধরণের অপকর্ম ও চক্রান্ত পরিহার করুন। ভোটের মাধ্যমে জনগনের রায়কে শ্রদ্ধা করুন। অন্যথায় আমার জীবন থাকতে সেই ধরণের খায়েশ আমি কোনদিন পুরণ হতে দেবনা।
প্রিয় চকরিয়াবাসি আপনারা প্রস্তুত থাকুন, জনবিচ্ছিন্ন চক্রের এই পরিকল্পনা কঠোর হাতে প্রতিরোধ করতে হবে। আপনারা সকল ধরণের ভয়ভীতিকে পদদলিত করে আগামী ১৮ মার্চ সারাদিন ভোট কেন্দ্রে থাকুন, ভোট কেন্দ্র পাহঁরা দেবেন। ইনশাল্লাহ আপনাদের ভোটে বিজয়ী হলে আপনারা দলমত নির্বিশেষে চকরিয়া উপজেলার আপামর জনসাধারণ হবেন শাসক, আমি হবো শুধুই আপনাদের সেবক। আমি আপনাদের ভালোবাসা, দোয়া ও আস্থার প্রতিদান দিতে চাই।
পথসভায় আরও বক্তব্য দেন চকরিয়া উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি শওকত হোসেন, উপজেলা আওয়ামীলীগের সদস্য পরিমল বড়–য়া, আওয়ামীলীগ নেতা মিফতাব উদ্দিন চৌধুরী, যুবনেতা সাইফুল ইসলাম, চকরিয়া পৌরসভা আওয়ামীলীগের সদস্য নুরুল আমীন টিপু, চকরিয়া পৌরসভা দুইনম্বর ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সভাপতি নাজেম উদ্দিন ভুট্টো, সাধারণ সম্পাদক নুরুল আবছার বাদশা, সাবেক সাধারণ সম্পাদক আবু হেনা মোস্তফা কামাল, ব্যবসায়ী সমিতির সাধারণ সম্পাদক এম নুরুস শফি, চকরিয়া পৌর যুবলীগের সহ-সভাপতি হাসান আল বসরী, কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক শেফায়েত কবির বাপ্পী, সাবেক ছাত্রনেতা আশেকুর রহমান মামুন, জেলা ছাত্রলীগের সদস্য তারেকুল ইসলাম রাহিত, পৌর যুবলীগ নেতা জামাল উদ্দিন।

ক্যাপশন: চিরিঙ্গা কাকারা বদরখালীতে ১২টি পথসভায় বক্তব্য দিচ্ছেন জনপ্রিয় চেয়ারম্যান প্রার্থী ফজলুল করিম সাঈদী

বিভাগের সংবাদ।

নিউজ ডেস্ক, চকরিয়া২৪।