সর্বশেষ শিরোনাম
চকরিয়া প্রেসক্লাব সভাপতি আবদুল মজিদকে বিভিন্ন শ্রেণি পেশার মানুষের গণসংবর্ধনাচকরিয়ায় ৩মাসের অন্ত:স্বত্ত্বা স্ত্রীকে নির্যাতন করে তাড়িয়ে খাইরু নামের এক প্রতারকের ৩য় বিয়েঅন্ধকারাচ্ছন্ন সমাজের আলো ও সফল নেতৃত্বের মডেল ছিলেন জিএম রহিমুল্লাহ‘তারুণ্যের আলো’ সামাজিক সংগঠনের আত্মপ্রকাশজেলা জজ আদালতের উদ্যোগে জাতীয় শোক দিবস পালিতচকরিয়ায় বঙ্গবন্ধুর ৪৪তম শাহাদাত বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস পালিতজাতীয় শোক দিবস ও শাহাদাত বার্ষিকী এমপি জাফর আলমের ব্যবস্থাপনায় চকরিয়া-পেকুয়ায় ৩০ পশুর গণভোজচকরিয়া পৌরসভায় মসজিদ ভিত্তির আদর্শ সমাজ ব্যবস্থা কাহারিয়াঘোনা ও করইয়াঘোনা গ্রাম সর্বমহলের নজর কেড়েছেচকরিয়া গ্রামার স্কুলে ৩ কোটি টাকার নতুন ভবন বরাদ্ধ দেয়া হবে ঈদপূর্ণমিলনীতে এমপি জাফরনিয়োগ বিজ্ঞপ্তি

চকরিয়া পৌর এলাকায় ভূয়া রোয়েদাদ সৃজন করে অসহায় পরিবারের জমি জবর দখলের চেষ্টা

[post-views]

DAKAL,

রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের আশঙ্খা

চকরিয়া অফিস:
চকরিয়ায় এক অসহায় পরিবারের পৈত্রিক ভোগ দখলীয় ও বৈধ মালিকানাধীন জমি তথা কথিত ভূয়া শালিসী রোয়েদাদ সৃজন করে জোর পূর্বক অবৈধভাবে জবর দখলে নিতে অপচেষ্টাসহ নানাভাবে হুমকি ধমকি দেওয়া হচ্ছে। পৌরসভা ৮নং ওয়ার্ডের চিরিংগা বাসষ্টেশন পাড়া এলাকায় ঘটেছে এ ঘটনা। এনিয়ে ভূক্তভোগী পরিবারের মৃত গোলাম বারীর পুত্র আবুল আহমদ বাদী হয়ে থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। এতে অভিযুক্ত করা হয় একই এলাকার মৃত হাজী মোস্তাক আহমদের পুত্র দেলোয়ার হোসেন, আলী আকবরের পুত্র এমএ বশির, খাইরুল বশর পারভেজ ও হোছাইন বশির পুতুকে। অভিযোগটি আমলে নিয়ে থানার উপপরিদর্শক জাকির হোসেনকে তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশনা দেন। এর প্রেক্ষিতে উভয়পক্ষকে নোটিশ দিয়ে প্রথম দফায় গত ১২ এপ্রিল ও দ্বিতীয় দফায় ১৫ এপ্রিল স্বাক্ষী প্রমাণাদী নিয়ে থানার উপস্থিত থাকার অনুরোধ জানানো হয়। থানার ওই নির্দেশনার পরও দখলবাজরা জমিতে ইট-বালি ও নির্মাণ সামগ্রী মজুদ করে ভাড়াটিয়া সন্ত্রাসী বাহিনী নিয়ে নির্মাণ কাজ চালিয়ে যাওয়ার অপচেষ্টা করে চালাচ্ছেন। এদিকে সৃজিত ভূয়া রোয়েদাদের বিষয়ে মধ্যস্থতাকারী ও ৪জন শালিসকারের মধ্যে হেলাল উদ্দিন, মৌলভী সাঈফুদ্দিন, ওমর হামজা জানিয়েছেন, তারা দেলোয়ার-বশির গংয়ের পক্ষে রোয়েদাদে কোন স্বাক্ষর করেননি। জমি দখলে যা দেখানো হচ্ছে, তা ভূয়া ও সাজানো।
অভিযোগে জানাগেছে, চিরিংগা মৌজার বাসষ্টেশন পাড়া এলাকায় মৃত গোলাম বারী গংয়ের পৈত্রিক মালিকানাধীন আরএস খতিয়ান নং ১৯৮, এমআর নং ২০৮, বিএস খতিয়ান নং ৭১, দাগ নং ৬৪৬, ৬৪৮, ৬৪৯, ৬৫০, ৭০২, ৭০৯ এর ৯৫ শতক জমি হইতে বিরোধীয় দাগ নং ৬৪৮ এর ১৪শতক জমি অভিযুক্তরা জোর পূর্বক জবর দখলে নেওয়ার অপচেষ্টা চালায়। এমনকি অভিযুক্ত দেলোয়ার-বশির গং শালিস বিচারে বৈধ কোন কাগজপত্র দেখাতে না পেরে তথাকথিত ভূয়া শালিসী রোয়েদাদ সৃজন করে অবৈধ দখল চেষ্টা অব্যাহত রেখেছেন। ইতিপূর্বে বিগত ২০১৪ সনের ৬ মে চকরিয়া থানায় শালিসী বৈঠকে যাবতীয় কাগজপত্র পর্যালোচনা করে আবুল আহমদ গং, রশিদ আহমদ গং ও নজির আহমদ গংয়ের পক্ষে চুড়ান্ত শালিসী রোয়েদাদ প্রচার করেন। এমনকি বিগত ২০১৩ সনের ১০ অক্টোবর হাজী মোস্তাক আহমদের পুত্র মোক্তার আহমদের সাথে ২৮২৯নং রেজি: বায়না দলিলও সম্পাদন করেন। বৈধ মালিকানা ও দখল থাকা সত্ত্বেও দেলোয়ার-বশির গং ভাড়াটিয়া সন্ত্রাসী বাহিনী নিয়ে অসহায় পরিবারের জমি অবৈধভাবে দখল চেষ্টা অব্যাহত রেখেছেন। এছাড়াও আবদুল মতলব ও আবুল আহমদ গংয়ের বিএস ২৩২ নং খতিয়ানের ৭১৮ দাগে এওয়াজ মূলে প্রাপ্ত প্রায় ৩শতক জমিতে অভিযুক্ত ভূমিদস্যু দেলোয়ার হোসেন গং জবর দখলে নিয়ে রাস্তা তৈরীর অপচেষ্টা চালাচ্ছে। এনিয়ে ভূক্তভোগী পরিবার জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপার কক্সবাজারসহ সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের হস্তক্ষেপ পূর্বক সুবিচার কামনা করেছেন। অন্যথায় উক্ত জমি নিয়ে জমি মালিক পক্ষ ও অবৈধ দখলদারদের মধ্যে যেকোন মুহুর্তে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের আশঙ্খা বিরাজ করছে।

বিভাগের সংবাদ।

নিউজ ডেস্ক, চকরিয়া২৪।