সর্বশেষ শিরোনাম
একজন সেবক হতে চাইসম্মিলিত প্রয়াসে ‘স্বপ্নের চকরিয়া’ গড়বো ইনশাল্লাহ-সাঈদীচকরিয়ায় পিকআপ মিনিট্রাক শ্রমিক ইউনিয়ন অফিসে তালা ঝুলিয়ে দেওয়ায় ক্ষুদ্ধ শ্রমিকরালক্ষ্যারচর ইউনিয়ন ও কৈয়ারবিল ১ ও ২নং ওয়ার্ড বর্ধিত সভায় সরওয়ার আলমচকরিয়ায় প্রধান শিক্ষকের অপসারণ দাবিতে শিক্ষার্থীদের স্কুলে তালা : ক্লাস বর্জনচকরিয়ায় শিশুকে ককটেল বাজি নিক্ষেপকরে ঝলসে দেয়াসহ ২ দফা হামলার ঘটনায় মামলাচকরিয়ায় অভিমান করে বিষপানে১ সন্তানের জনকের আত্মহত্যাচকরিয়ায় অগ্নিকাণ্ডে ক্ষতিগ্রস্তদের উপজেলা প্রশাসনের সহায়তাচকরিয়া ও পেকুয়া উপজেলা পরিষদের নির্বাচিত চেয়ারম্যান-ভাইস চেয়ারম্যানের শপথ গ্রহণচকরিয়ায় পাওনা টাকা চাওয়ায় ক্ষিপ্ত হয়ে বিদেশগামী যুবকের বাড়িতে হামলা ও ভাংচুর, আহত ৬চকরিয়ায় স্বচ্ছ, জবাবদিহিতা মূলক ও নাগরিক বান্ধব ইউপি গঠনে চেয়ারম্যানদের অংশগ্রহণে মতবিনিময় সভা

চকরিয়ায় এতিম পরিবারের সহায় সম্পত্তি জবর দখল চেষ্টায় মায়ের বদলে সন্তানের উপর অকটেন বোমা হামলা

[post-views]

tasmin, chakaria 15-4-19

চকরিয়া অফিস:
চকরিয়া পৌর এলাকায় এক অসহায় পরিবারের সহায় সম্পত্তি জবর দখল চেষ্টায় ব্যর্থ হয়ে মাকে হামলা চালাতে না পেরে নিস্পাপ শিশুর উপর অকটেন সদৃশ্য বোমা মেরে ঝলছে দিয়েছে সন্ত্রাসী লোকজন। অকটেন সদৃশ্য বোমার আঘাতে শিশুটির পায়ে লেগে ঝলছে গিয়ে ক্ষত তৈরী হয়েছে। ১৪ এপ্রিল (সোমবার) রাত ১২ টার দিকে চকরিয়া পৌরসভা ২ নং ওয়ার্ডের হালকাকারা জালিয়াপাড়া এলাকায় ঘটেছে এ ঘটনা। আহত শিশুর নাম তাসমিন সোলতানা নূরী (বয়স ৪ বছর)। তার পিতার নাম মরহুম মোহাম্মদ হাসেম। পরিবারের সদস্যরা ও স্থানীয় লোকজন এগিয়ে এসে আহত শিশুকে উদ্ধার করে চকরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। সে বর্তমানে হাসপাতালের ২০নং সীটে চিকিৎসাধীন রয়েছে।
আহত শিশুর মা খতিজা বেগম অভিযোগ করেন, স্থানীয় কয়েকজন প্রতিবেশি ব্যক্তি বেশ কিছুদিন ধরে তার মরহুম স্বামীর সহায় সম্পত্তি অবৈধভাবে জবর দখলে নেওয়ার পায়াতারা চালিয়ে আসছিলো। এমনকি তার উপর একাধিকবার হামলার চেষ্টাও চালানো হয়েছে। সর্বশেষ গত ১৪এপ্রিল রাতে বাড়ির পাশ্ববর্তী একটি বিয়ের অনুষ্ঠান থেকে তার মেয়ে তাসমিন সোলতানা নূরী বাড়ি ফেরার পথে মেয়েকে লক্ষ্য করে অকটেন বোমা নিক্ষেপ করে। এতে তার মেয়ের পা ঝলসে গিয়ে ক্ষত হয়েছে। ঘটনার সময় হামলায় অভিযুক্ত জকরিয়ার পুত্র মাহবুবুল আলমকে হাতে-নাতে ধরে ফেলেন তারা। এসময় স্থানীয়দের অনুরোধে সন্তানকে জরুরী চিকিৎসা দেওয়ার হাসপাতালে নিয়ে আসেন। তিনি হামলার ঘটনায় মনির আহমদের পুত্র ছালামত উল্লাহ, ছাবের আহমদ ও জকরিয়া নামে আরো ৩/৪জন ছিল বলে জানান।
চকরিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো: বখতিয়ার উদ্দিন চৌধুরী জানিয়েছেন, ঘটনার বিষয়ে কেউ অবহিত কিংবা লিখিত অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

বিভাগের সংবাদ।

নিউজ ডেস্ক, চকরিয়া২৪।