সর্বশেষ শিরোনাম
চকরিয়ায় আদালতের নির্দেশে দুইটি অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদউচ্চ আদালত থেকে আগাম জামিন পেলেন চকরিয়া প্রেসক্লাবের সভাপতিদেশগড়ার কারিগর ছাত্র সমাজকে মাদকমুক্ত সুন্দর ভবিষ্যত গড়তে লেখাপড়া করতে হবেচকরিয়ায় সাজাপ্রাপ্ত যৌতুকলোভী স্বামী গ্রেফতারচকরিয়ায় ছোট ভাইয়ের হাতে বড় ভাই খুনচকরিয়ায় অভিনব কায়দায় টাটা গাড়ী চুরির অভিযোগ,থানা জিডিদাবীকৃত চাঁদার টাকা না পাওয়ায় সশস্ত্র হামলা, বাউন্ডারি ওয়াল ভাংচুরসাহারবিল ৭ নং ওয়ার্ড় ছাত্রলীগের সম্মেলন ও কমিটি গঠিত সম্পন্নচকরিয়ার লক্ষ্যারচর ইউনিয়ন যুবলীগের আংশিক কমিটি অনুমোদনপেকুয়া উপজেলার ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান উম্মে কুলছুম মিনু এমপি জাফর আলমের সাথে শুভেচ্ছা বিনিময়

মহেশখালীতে ইয়াবা বিক্রিতে বাঁধা দেয়ায় হামলায় শিক্ষকসহ আহত-৫

[post-views]

PicsArt_05-23-01.42.25

আল জাবের, উপকূলীয় প্রতিনিধিঃ

কক্সবাজারের মহেশখালী উপজেলার মাতারবাড়ীতে পূর্ব শত্রুতার জেরে ও ইয়াবা বিক্রিতে বাঁধা দেয়ায় প্রতিপক্ষের সন্ত্রাসী হামলায় মাদ্রাসার শিক্ষকসহ ৫জনকে ধারালো অস্ত্রদিয়ে কুপিয়ে গুরুতর আহত করা হয়েছে। আহতদের উদ্ধার করে চকরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। তৎমধ্যে তিনজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদেরকে রাত ১১টার দিকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল (চমেক) প্রেরণ করা হয়েছে।
বুধবার রাত সাড়ে ৭টার দিকে মহেশখালী উপজেলার মাতারবাড়ী ইউনিয়নের সর্দার পাড়া রাস্তার মাথাস্থ আজিজুল হকের দোকানের সামনে এ ঘটনা ঘটে।
স্থানীয় সূত্রে জানাগেছে, বুধবার রাত ৭টার দিকে বখাটে কয়েক সন্ত্রাসী যুবক মাতারবাড়ীস্থ সর্দার পাড়া এলাকায় প্রকাশ্যে দিবালোকে ইয়াবা বিক্রি করছিল। এ সময় স্থানীয় কয়েকজন ব্যক্তি মাদক বিক্রিতে বাঁধা দেয়। ওই সময় বখাটে যুবকের পক্ষে স্থানীয় চিহ্নিত ডাকাত আক্কাসের ভাই তার সাঙ্গপাঙ্গ নিয়ে একই এলাকার মৃত নুর আহমদের ছেলে নবীর হোসেন, তার ভাই আইয়ুব, ইমান আলী, সোনা আলী ও মোহাম্মদ আলীর নেতৃত্বে ১২/১৪ স্বশস্ত্র সন্ত্রাসীরা পূর্ব শত্রুতার জেরে অতর্কিত ভাবে হামলা চালিয়ে ৫ ব্যক্তিকে আহত করা হয়। ওই সময় দু’পক্ষের ঝগড়া থামাতে গিয়ে প্রতিপক্ষের হামলায় দেশীয় তৈরি ধারালো অস্ত্রের আঘাতে স্থানীয় এক মাদ্রাসার শিক্ষককে কুপিয়ে জখম করা হয়। হামলায় আহত ব্যক্তিরা হলেন, মাতারবাড়ী আল ইসলামিয়া দারুল উলুম মাদ্রাসার শিক্ষক ও সর্দার পাড়া এলাকার মৃত মনছুর অালীর ছেলে মাষ্ঠার নাছির উদ্দিন (৫৮), একই এলাকার খাইরুল্লাহর ছেলে জয়নাল আবেদীন (৩২), তার ভাই রবিউল হোসেন (৩০), একই এলাকার সালেহ আহমদের ছেলে দুলাল (২৫), মোহাম্মদ জাবেরের ছেলে মিজান (২৩)। এরই মধ্যে আহত শিক্ষক নাছির উদ্দিনসহ গুরুতর তিন ব্যক্তির অবস্থা আশঙ্কা হলে বুধবার রাত ১১টার দিকে তাদেরকে চমেক হাসপাতালে প্রেরণ করেছে কর্তব্যরত চিকিৎসক। এ ঘটনা নিয়ে থানায় মামলার প্রস্তুতি নেয়া হচ্ছে বলে জানান আহত পরিবারের সদস্য শামসুল আলম।
এ ব্যাপারে মহেশখালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) প্রভাষ চন্দ্র ধর বলেন, ঘটনার বিষয়ে কেউ থানায় অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে তিনি জানান।#

বিভাগের সংবাদ।

নিউজ ডেস্ক, চকরিয়া২৪।