চকরিয়ায় বাগানে আগুন দিয়ে ১০ হাজার কেটে লুটে গ্রেফতারীপরোয়ানা জারি হওয়ায় বাগান মালিককে প্রাণনাশের হুমকি

[post-views]

kaji faroque, chakaria 27-5-19.,

চকরিয়া অফিস:
চকরিয়ার কাকারা বনবিট সংলগ্ন ফাইতং লতিয়ারডেবা মৌজার ২০ একর বিশিষ্ট বাগানে আগুন নিয়ে বিভিন্ন প্রজাতির প্রায় ১০ হাজার টাকা গাছ কেটে লুটের ঘটনায় বাগান মালিক বাদী হয়ে দায়েরকৃত পৃথক ২টি মামলায় আদালত কর্তৃক গ্রেফতারী পরোয়ানা জারি করায় ক্ষিপ্ত হয়ে এবার মোবাইলে ও প্রকাশ্যে বাগান মালিককে প্রাণনাশের হুমকি দেওয়া হয়েছে। ২৬মে রাত ১১টায় চকরিয়া উপজেলার লক্ষ্যারচর ইউনিয়নের জিদ্দাবাজার ষ্টেশন এলাকায় এ ঘটনা ঘটেছে। এনিয়ে ক্ষতিগ্রস্ত বাগান মালিকসহ স্থানীয়দের মাঝে বিরাজ করছে ক্ষোভ ও উত্তেজনা।
প্রাপ্ত তথ্যে ও অভিযোগে জানাগেছে, লক্ষ্যারচর ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ড জিদ্দাবাজার পূর্বপাড়া এলাকার মাহবুবুর রহমানের পুত্র আবু ওমর (৫৪) এর মালিকানাধীন কাকারা বনবিট ও ফাইতং মৌজায় বেশ কিছু পরিমাণে বাগান বিশিষ্ট জমি রয়েছে। সম্প্রতি একই এলাকার মৃত গুরা মিয়ার পুত্র জালাল উদ্দিনের নেতৃত্বে সম্পূর্ণ অন্যায়ভাবে বাগানের গাছ লুট ও জবর দখলের হুমকি দিয়ে ৫লাখ টাকা চাঁদা দাবী করেন। দাবীকৃত চাঁদা না দেওয়ায় ক্ষিপ্ত হয়ে ভাড়াটিয়া সন্ত্রাসী বাহিনী নিয়ে লতিয়ারডেবার ২০ একর বাগানে আগুনে পুড়িয়ে দেয় ও ৫বছর বয়সী বাগানের ৩০/৩৫ইঞ্চি বেড় ও ৩৫৪০ফুট লম্বা বিভিন্ন প্রজাতির অন্তত ১০ হাজার টাকা কেটে লুট করে নিয়ে যায় এবং বাগানের পাশ্ববর্তী ফাইতংয়ের ইটভাটায় লুটকৃত গাছ বিক্রি করে। এতে অন্তত ১৫ লক্ষাধিক টাকার ক্ষতি সাধন হয়েছে বলে দাবী করেন আবু ওমর (কাজী ফারুক)। এনিয়ে অভিযুক্ত জালাল বাহিনীর বিরুদ্ধে চকরিয়া ও লামা থানা এবং আদালতে পৃথক মামলা ও অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। ইতিপূর্বে বাগানের গাছ লুট ও প্রাণনাশের হুমকির আশঙ্খা প্রকাশ করে চকরিয়া থানায় জিডি নং ১৩২৯/১৮ দায়ের করা হয়। তদন্তকারী কর্মকর্তা চকরিয়া থানার উপপরিদর্শক আবদুল বাতেন অভিযোগের সত্যতা পেয়েছেন মর্মে আদালতে ননজিআর নং ১২/১৯ প্রতিবেদন দাখিল করেন। ওই মামলায় জালাল উদ্দিন ও তার ছেলে মুবিনুল হকের বিরুদ্ধে গ্রেফতারী পরোয়ানা রয়েছে। অপরদিকে তাদের বিরুদ্ধে থানায় জিআর মামলা নং ৪৩/১৮সহ একাধিক মামলায় গ্রেফতারী পরোয়ানা রয়েছে। সর্বশেষ গত ২৬মে’১৯ইং রাত ১১টা ১মিনিটে অভিযুক্ত দখলবাজ জালাল উদ্দিন, তার ছেলে মুবিনুল হক, আফেল কাদের, রুহুল কাদের ও তার স্ত্রী শাহিনা বেগম এবং ভাড়াটিয়া আরো ৫/৬জন সন্ত্রাসী বাহিনী নিয়ে মোবাইল ফোনে (নং ০১৮৪৪৭৯৮৬০২) ও প্রকাশ্যে বাগান মালিক আবু ওমর (কাজী ফারুক)কে তার বাড়িতে গিয়ে প্রকাশ্যে প্রাণনাশের হুমকি দিয়েছে। এনিয়ে তাদের মধ্যে ক্ষোভ ও উত্তেজনা বিরাজ করছে। কাজী ফারুক প্রশাসনের হস্তক্ষেপ পূর্বক অভিযুক্তদের গ্রেফতার দাবী করেছেন।##

বিভাগের সংবাদ।

নিউজ ডেস্ক, চকরিয়া২৪।