সর্বশেষ শিরোনাম
কক্সবাজার এলও শাখায় ৫ দালাল আটক ও কয়েকজন পলাতকনোটারী মূলে ও কলেমা পড়ে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ, নোটারী ও রেজিষ্ট্রি মূলে কামাল-কাসফিয়া’র বিয়েআল-রাজি চক্ষু হাসপাতালচকরিয়া হাফেজ রুহুল আমিন হত্যায় জড়িতদের অবিলম্বে গ্রেপ্তার ও শাস্তির দাবীতে মানববন্ধনবদরখালী ১নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের তথা কথিত কমিটি প্রত্যাখান করে কাউন্সিলের মাধ্যমে কমিটি গঠনের দাবীচকরিয়ার বদরখালী সমবায় কৃষি ও উপনিবেশ সমিতির নবনির্বাচিত কমিটির অভিষেক অনুষ্ঠানচকরিয়ার বদরখালীতে এক ইয়াবা ব্যবসায়ীর অত্যাচারে অতিষ্ট এলাকাবাসীচকরিয়ার বরইতলীতে চৌকিদার নিয়োগে অনিয়মের অভিযোগ, ব্যবস্থা নেয়ার নির্দেশনা এমপি’রচকরিয়ায় মেসার্স আকিফ পর্দা বিতান ও নিউ চকরিয়া আনোয়ার বেডিং ষ্টোর শোরুম উদ্বোধনব্লাড ক্যান্সারে আক্রান্ত চকরিয়া পৌরসভার স্টাফ রকিব হাসানকে বাঁচাতে এগিয়ে আসুন

প্রকাশিত সংবাদ নিয়ে প্রতিবাদ, ব্যাখ্যা ও নিন্দা

[post-views]

Protibad_1
গত ২৬ জুন দৈনিক কক্সবাজার পত্রিকায় ” চকরিয়ায় যুবলীগের নেতার নেতৃত্বে বিধবার বসত বাড়ীতে হামলা ও ভাংচুর ” শীর্ষক সংবাদটি আমাদের দৃষ্টি গোচর হয়েছে। সংবাদটি সম্পূর্ণ মিথ্যা, ভিত্তিহীন কাল্পনিক ও উদ্দেশ্য প্রণোদিত। সংবাদের সাথে বাস্তবতার কোন মিলনাই। উক্ত সংবাদে আমাদেরকে যেভাবে উপস্থাপন করা হয়েছে তার আদৌ সত্যতা পাওয়া যাবেনা। এলাকাবাসীসহ সচেতন মহল আমাদের ব্যাপারে অবগত রয়েছেন এবং জানেন। সর্বনাশা ইয়াবা ব্যবসায়ী পরিবার আমাদের বিরুদ্ধে এসব অপপ্রচারে নেমেছে।
প্রকৃত ঘটনা হলো , সরকারের ঘোষণানুযায়ী ইয়াবা ব্যবসায়ী, সেবনকারীসহ মাদকের বিরুদ্ধে আমরা পশ্চিম বড় ভেওলা ইউনিয়ন যুবলীগের পক্ষ থেকে যখন সচেতনতা মুলক বিভিন্ন কার্য্যক্রম শুরু করি তখনই ইয়াবা ব্যবসায়ীরা প্রকৃত সত্যকে ভিন্ন খাতে প্রবাহিত করার জন্য বসত বাড়ীতে হামলা ও ভাংচুরের নাটক সাজিয়েছে। আপনারা সকলেই অবগত আছেন যে, গত ১৩ জুলাই ২০১৮ চকরিয়া উপজেলার পশ্চিম দরবেশকাটা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মাষ্টার জমির উদ্দীন ৩০ হাজার পিচ ইয়াবাসহ চট্টগ্রাম আকবর শাহ থানায় গ্রেপ্তার হয়েছেন। যার সাধারণ ডায়েরী নং ১৩০৯ তাং ১৩/৭/২০১৮ এবং একই তারিখে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা (নং- ২৯/১৮) রুজু হয়। বর্তমানেও জমির উদ্দীন জেল হাজতে রয়েছে। সংবাদে উল্লেখিত শাহানা বেগম জেল হাজতে থাকা ইয়াবা মামলার আসামী জমির উদ্দীনের বড় ভাই মৃত সাহাব উদ্দীনের স্ত্রী। জমির উদ্দীন জেলে থাকলেও তার পরিবার ইয়াবা ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে নিয়মিত। এই ইয়াবা ব্যবসায়  মাষ্টার জমিরের ভাই মৃত সাহাব উদ্দীনের পূত্র  তৌহিদুল ইসলাম, দরবেশকাটা ৪নং ওয়ার্ড়ের নাছির উদ্দীনের পুত্র ও তৌহিদুল ইসলামের বোনের জামাতা মোহাম্মদ আজিজ ও জমিরের  ছোট্ট ভাই জসিম উদ্দীন।
এই চিহ্নিত ইয়াবা ব্যবসায়ী  পরিবারকে বাধা দিতে গিয়ে পশ্চিম বড় ভেওলা ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি আবদুল্লাহ আল নোমান ও সিনিয়র সহ সভাপতি মুসলিম উদ্দীনসহ সংগঠনের কর্মীদের নামে মিথ্যা সাজানো নাটক প্রচার করে যাচ্ছে। প্রিন্ট মিডিয়া ছাড়াও ইয়াবা ব্যবসায়ীরা নানান কূরুচিপূর্ণ লিপলেট ছাপিয়ে ও প্রচার করে যাচ্ছে। যাতে করে সাধারণ মানুষ বিভ্রান্ত হয়। আমরা পশ্চিম বড় ভেওলা ইউনিয়ন যুবলীগের পক্ষ থেকে সমাজের সচেতন মহল, জনপ্রতিনিধি, প্রশাসনসহ জনসাধারণকে বিভ্রান্ত না হওয়ার জন্য অনুরুধ জানাচ্ছি। ইয়াবা ব্যবসায়ীদের এ ধরনের মিথ্যা সংবাদের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি।
প্রতিবাদকারী:
আবদুল্লাহ আল নোমান- সভাপতি,
মোসলিম উদ্দীন-সিনিয়র সহ সভাপতি, পশ্চিম বড় ভেওলা ইউনিয়ন  যুবলীগ, চকরিয়া, কক্সবাজার।
বিভাগের সংবাদ।

নিউজ ডেস্ক, চকরিয়া২৪।